বুধবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:৩৬ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম:
Logo দাখিল পরীক্ষার রুটিন প্রকাশ, পরীক্ষা শুরু ১৪ নভেম্বর Logo দাফনের সাড়ে ৪ মাস পেরুলেও কবর থেকে অক্ষত অবস্থায় নারীর মরদেহ উদ্ধার Logo শ্রীপুর কলেজ ক্যাম্পাসে অস্ত্রের মহড়া Logo মানি লন্ডারিং প্রমাণ না হলে সাজা ৭ বছর Logo সাংবাদিকদের মনে ভয়ভীতি সৃষ্টি করতেই নেতাদের ব্যাংক হিসাব তলব Logo টাকা ফেরতে ইভ্যালি, ই–অরেঞ্জের গ্রাহকেরা যা করতে পারেন, তবে… Logo সর্বোচ্চ সতর্কতা ই-কমার্সে Logo দুদকের ২০ মামলায় আসামি হচ্ছেন সাবেক সিনিয়র সচিবসহ ৭৫ জন Logo আওয়ামী লীগ নেতার মোটরসাইকেল শোডাউনে হামলা, আহত ৫ Logo সরকারি দলের নির্বাচন প্রস্তুতিকে ফাঁদ হিসেবে দেখছে বিএনপি Logo সিরিজ ষড়যন্ত্রের গোপন সভা করেছে বিএনপি : সেতুমন্ত্রী Logo এক হাজার কোটি টাকা দেনার বিপরীতে ইভ্যালি’র ব্যাংকে মাত্র ৩০ লাখ টাকা Logo ছেলে বাবার চেয়ে ২ বছরের বড়, এলাকায় তোলপাড়! Logo খালেদার মুক্তির মেয়াদ বাড়ছে এ সপ্তাহে, সম্মতি প্রধানমন্ত্রীর Logo নুসরাতকে ‘নারীবাদী বিপ্লবী’ ভেবেছিলেন; দ্রুতই ভুল ভাঙল তসলিমার Logo কবুতর: বাংলাদেশে বাড়ছে দামী জাতের পালন, হচ্ছে কবুতরের রেসিং, রয়েছে কবুতরের খামার Logo চীনা নভোচারীরা তাদের সবচেয়ে দীর্ঘ মহাকাশ মিশন শেষে পৃথিবীতে ফিরেছেন Logo পরীমনি: আদালতে হাজিরা দেবার পর হাতের নতুন বার্তা নিয়ে জল্পনা কল্পনা Logo হাইটেক পার্কে কী হচ্ছে দেখতে যাবেন পরিকল্পনামন্ত্রী Logo কমেছে করোনার রোগী, স্বস্তিতে চিকিৎসক-নার্সরা । রোগীর চাপ নেই। পড়ে আছে ফাঁকা শয্যা। আজ সকালে দিনাজপুর এম আবদুর রহিম হাসপাতালের দ্বিতীয় তলার এইচডিইউতে Logo দিনাজপুরে অভিযানে জঙ্গি সন্দেহে আটক ৪৫ Logo চট্টগ্রামে দ্বিতীয় কারাগারের জন্য জমি পাওয়া যাচ্ছে না Logo খেলা হবে ২০ তারিখ নৌকা মার্কায় ভোট দিন। Logo নাইক্ষ্যংছড়িতে দেশীয় চোলাই মদ সহ আটক-২ Logo গাজীপুর মহা নগরে আট লক্ষ টাকা মুক্তিপনের দাবীতে অপহরন কারী কে গ্রেপ্তার। Logo মা হওয়ার ইচ্ছা প্রভা’র, পাচ্ছে না সন্তানের বাবা! Logo নৌকার ধাক্কায় ভেঙে পড়ল ২২ বছরের পূুরানো সেতু! Logo করোনায় চাকরি হারিয়ে সফল উদ্যোক্তা জবির সাবেক শিক্ষার্থী! Logo ফ্লাইওভার থেকে বাইক নিয়ে ছিটকে পড়লেন যুবক, মর্মান্তিক পরিণতি Logo খালেদাকে বিদেশে নিতে অপেক্ষা সবুজ সংকেতের

রাজশাহীতে বড় মসজিদের পাশেই, ২০ বছর ধরে চলছে দেহ ব্যবসা

জনপ্রিয় খবর প্রতিনিধি : / ৫৭ বার পঠিত
সময়: বৃহস্পতিবার, ২৯ এপ্রিল, ২০২১, ২:৪৪ পূর্বাহ্ণ

সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বিশেষ প্রতিনিধি: রাজশাহী মহানগরীতে জিরো পয়েন্টে বড় মসজিদের পাশেই অবস্থিত  আবাসিক হোটেল সুর্যমুখী ২০ বছর ধরে  দেহ ব্যবসা চালিয়ে আসছে । নগরীর ছোট -বড় সকলেইরই জানা এই হোটেল নামে আবাসিক কিন্তু দেহ ব্যবসাই এই হোটেলের মূল ব্যবসা। কালের বিবর্তনে এই হোটেলের মালিকানা পরিবর্তন হলেও নুন্যতম পরিবর্তন ঘটেনি দেহ ব্যবসায়।

দাপটের সাথে আবাসিক হোটেল সুর্যমুখী ২০ বছর ধরে ব্যাবসা চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানান এলাকার ব্যবসায়ী ও বাসিন্দারা।

এই হোটেলের গুরুদ্বায়িত্ত্ব পালন করছেন শরীয়তপুর জেলার বাসিন্দা মনির হোসেন,যিনি  রাজশাহী মহানগরীর পতিতা ব্যাবসার অন্যতম প্রধান গডফাদার।বিশেষ সুত্র থেকে জানা যায় , এই মনিরের খপ্পরে পরে পতিতা ব্যাবসায় নামতে বাধ্য হয়েছে অসহায় অনেক যুবতী।আর এখন তো সন্ধার পরেই বসে ইয়াবা আর মদের আসর যার ফলে, নিঃশ্ব হয়ে পথে পথে ঘুরে বেড়াচ্ছে অনেক যুবক।

অনুসন্ধানে জানা গেছে, নগরীর সহেববাজার বড় মসজিদের পাশে আবাসিক হোটেল সুর্যমুখীর কেয়ার টেকার মনির দীর্ঘ দিন যাবত যুবতীদের দিয়ে আবাসিক হোটেল সুর্যমুখী সহ নগরীর বিভিন্ন স্থানে বাসা ভাড়া নিয়ে রমরমা ভাবে পতিতা ব্যবসা করছে।গোপন এটি সূত্রে জানা গেছে, মনিরের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে অনেক যুবতী, তার কথা না শুনলে ভয়ভীতি দেখায়। অশ্রুশিক্ত চোখে কয়েক জন পতিতা নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, আমরা এখন রক্ষিতা আর পতিতার পরিচয় নিয়ে বেঁচে আছি। আমরা এ জীবন থেকে মুক্তি চাই। পতিতা ব্যাবসায়ী মনিরের হাত থেকে আমাদের রক্ষা করুন।

সুত্রে জানা যায়, আবাসিক হোটেল সুর্যমুখীর ৩য় তালায় ২৬ নম্বর রুমটিতে দিনের বেলায় মেয়েদের রাখা হয়। আর রাতে রাখা হয় ১০,১২,১৪,১৮ নম্বর রুমে। মনির শহরের আবাসিক হোটেল এবং নারী পিপাসু ব্যাক্তিদের কাছে সুন্দরী নারীদের জিম্মি করে সরবরাহ করে থাকেন। রাত গভীর হলে বিভিন্ন পরিবহনের মাধ্যমে তাদের গন্তব্য স্থানে পাঠিয়ে দেয়। মনিরের অদৃশ্য ক্ষমতার দাপটে ভয়ে কেউ কিছু বলে না। তার এসকল অনৈতিক কর্মকান্ডের প্রতিবাদ করলে তার পেটুয়া বাহিনী দিয়ে বিভিন্ন ভাবে ফাঁসিয়ে দেয় তাদের লাঞ্চিত করে থাকেন।

উল্লেখযোগ্য যে, বিগত বছরগুলোতেও হত্যার মত নৃসংস ঘটনা গতেছে এই হোটেলে।

শরীয়তপুর জেলার বাসিন্দা মনির হোসেন। অভাবী পরিবারের সন্তান হবার কারণে খুব অল্প বয়স থেকে জড়িয়ে পড়েন বিভিন্ন অসামাজিক ও অবৈধ কাজে।মনির হোসেন রাজশাহীতে পদার্পণ করেন আনুমানিক ২০০৭ সালের দিকে, মূলত দেহ ব্যবসাকে কেন্দ্র করেই প্রাথমিক অবস্থায় রাজশাহী আবাসিক হোটেল সুর্যমুখীতে বয় হিসেবে নিয়োগ পান এই মনির।

ধীরে ধীরে পতিতা  মেয়েদের সংগ্রহের বিষয়ে বিশেষ পারদর্শিতার উত্কর্ষে পৌছান মনির ।কখনো কখনোতো নিজেই বলেন তিনিই এখন এই হোটেলের মূল মালিক। দেশের বিভিন্ন অপরাধ প্রবণ অঞ্চল থেকে চরমপন্থি, জেএমবি ও সর্বহারার মতো সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকেও তার এই হোটেলে আশ্রয় দিয়ে থাকেন বলে একাধিক সুত্রে জানা যায়। আর সম্প্রতি দেহ ব্যবসার পাশাপাশি  মনির যুক্ত হয়েছে মাদক ব্যবসায়।মনিরের এই অনৈতিক কর্মকান্ডে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে এলাকার মানুষ । নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকটি  সূত্রে জানা গেছে, প্রশাসনের কিছু অসাধু ব্যক্তিকে ম্যানেজ করেই ব্যবসা চালাচ্ছে বলে প্রশাসনেরও কোন ভ্রুক্ষেপ নাই এ ব্যাপারে।

তবে সচেতন মহল মনে করছে -এখনই যদি এর প্রতিকার না হয় তবে আগামী প্রজন্মর ভবিষ্যত অন্ধকার ছাড়া আর কিছু নয়।


সংবাদটি শেয়ার করুন:
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Archive Calendar

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও সংবাদ

Archive Calendar

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০

ফেসবুকে আমরা

মুজিব শতবর্ষ

সুরক্ষা অনলাই পোটার্ল

বাংলা পত্রিকাসমূহ

ইতিহাসের এই দিনে

বাংলাদেশের ৩৫০ ‍জন এমপিদের তালিকা

বিজ্ঞাপন

Web Deveoped By IT DOMAIN HOST